নৌঁঘাটি ও বানৌজা সড়ক শেখ হাসিনার উপহার এমপি জাফর আলম - কক্সবাজার কন্ঠ

বুধবার, ২০ জানুয়ারী ২০২১ ৬ই মাঘ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

প্রকাশ :  ২০২০-১২-০১ ১৪:১৭:০৫

নৌঁঘাটি ও বানৌজা সড়ক শেখ হাসিনার উপহার এমপি জাফর আলম

নৌঁঘাটি ও বানৌজা সড়ক শেখ হাসিনার উপহার মগনামায় এমপি জাফর আলম

রিয়াজ উদ্দিন পেকুয়া : কক্সবাজারের পেকুয়া উপজেলার মগনামা ইউপিতে আরএইচডি ভায়া মগনামা হাই স্কুল টু মগনামা ইউপি সড়ক এইচবিবি দ্বারা উন্নয়নের শুভ উদ্ধোধন এবং শেখ আব্দুল আজিজ চৌধুরী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন উপলক্ষে আয়োজিত বিশাল সমাবেশে বক্তব্য রাখতে গিয়ে জাফর আলম এমপি বলেছেন, এক সময় চকরিয়া-পেকুয়ার মানুষ মনে করতো বিএনপি-জামাতের আমলের সাবেক প্রতিমন্ত্রী সালাউদ্দিন আহমদ সবচেয়ে বেশি উন্নয়ন হয়েছে। কিন্তু হাজার হাজার কোটি টাকা ব্যয়ে সাব-মেরিন নৌঘাঁটি ও ৩৬১ কোটি টাকা ব্যয়ে বানৌজা শেখ হাসিনা সড়ক এক মাত্র জননেত্রী শেখ হাসিনার সরকার তথা আ’লীগ সরকারের আমলে হয়েছে। যা বিএনপির সরকার আমলে কখনো কল্পনা করা যায়নি। আমি যখন সংসদে কথা বলি তখন কথা বলি গরীব দুঃখি মেহনতি মানুষের কথা। আমি কথা বলি অসহায় লবণ চাষীদের দুঃখের কথা। প্রান্তিক লবণ চাষীদের কাজ থেকে সরকার যাতে সরাসরি লবণ ক্রয় করতে পারে তার জন্য সংসদে দাবী তুলেছি।

আপনার যারা আজকের বিশাল জনসভায় উপস্থিত আছেন মনে রাখবেন উপরে মহান আল্লাহ আর নিচে জননেত্রী শেখ হাসিনার উন্নয়ন। জননেত্রী শেখ হাসিনার উন্নয়ন এখন সারাবিশ্বে রোল মডেল। নৌঁঘাটি ও বানৌজা সড়ক প্রধানমন্ত্রীর উপহার। চেয়ারম্যান শরাফত উল্লাহ চৌধুরীর হাতে মগনামায় যতেষ্ট উন্নয়ন হয়েছে বলেই অতিতের মগনামা আর আজকের মগনামা অনেক ভিন্ন। সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান রাজু বিএনপি করলেও তার মরহুম পিতার নামে স্কুল দিয়ে সরকারিকরণ করা হয়েছে। আজকে ওনার দাদার নামে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় উদ্বোধন করা হচ্ছে। এ সরকার প্রতিহিংসার রাজনীতি করেনা। তাই আমি জনগণের উদ্দেশ্যে বলবো জননেত্রী শেখ হাসিনার হাতকে শক্তিশালী করতে ও মগনামার উন্নয়নকে আরো এগিয়ে নিতে আবারো চেয়ারম্যান ওয়াসিমকে ভোট দিয়ে নির্বাচিত করুণ।

মঙ্গলবার দুপুরে মগনামা ইউনিয়ন পরিষদ মাঠে আয়োজিত বিশাল জনসভায় সভাপতিত্ব করেন মগনামা ইউপির চেয়ারম্যান শরাফত উল্লাহ চৌধুরী ওয়াসিম।

এসময় বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন, পেকুয়া উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ও উপজেলা যুবলীগ সভাপতি জাহাঙ্গীর আলম।

তিঁনি বলেন, চকরিয়া-পেকুয়ার মাননীয় সাংসদ জাফর আলমের নেতৃত্বে আমরা এক ও অভিন্ন। ঐক্যবদ্ধভাবে আমরা পেকুয়ার উন্নয়নকে এগিয়ে নিতে চাই। উপজেলা পরিষদের পক্ষ থেকে মগনামা ইউনিয়নে আমার যা যা করার দরকার সব করবো ইনশাল্লাহ।

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে উপজেলা আ’লীগের সম্মেলন প্রস্তুতি কমিটির আহ্বায়ক আবু হেনা মোস্তফা কামাল বলেন, মগনামা ইউপির চেয়ারম্যান শরাফত উল্লাহ চৌধুরী ওয়াসিমের হাত ধরে মগনামায় অসম্ভব উন্নয়ন হয়েছে। এর ধারাবাহিকতা বজায় রাখতে চাইলে মাননীয় এমপি মহোদয়ের প্রতি বিনীত অনুরোধ পেকুয়াকে পৌরসভায় উন্নতি করা হউক।

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে উপজেলা আ’লীগের সম্মেলন প্রস্তুতি কমিটির সদস্য সচিব আবুল কাশেম বলেন, এক সময়ের উন্নয়নহীণ মগনামা ইউনিয়ন এখন সারাদেশের আলোচিত ইউনিয়ন। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার হাত ধরে কোটি কোটি টাকার প্রকল্প বাস্তবায়ন হচ্ছে মগনামায়। চেয়ারম্যান নিজ উদ্যোগে কয়েক কোটির টাকার উন্নয়ন করেছে। উন্নয়নকে এগিয়ে নিতে আবারো ওয়াসিমকে চেয়ারম্যান হিসাবে নির্বাচিত করার আহ্বান জানাচ্ছি।

সভাপতির বক্তব্যে চেয়ারম্যান শরাফত উল্লাহ চৌধুরী ওয়াসিম বলেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার প্রতি আমরা কৃতজ্ঞ। আমার ইউনিয়নকে এগিয়ে নিতে মাননীয় এমপি জাফর আলম মহোদয় সব সময় সহযোগিতা করেন। নতুনভাবে আমরা উপজেলা চেয়ারম্যান জাহাঙ্গীর আলমকে কাছে পেয়েছি। ইনশাল্লাহ মগনামা ইউনিয়ন হবে সারাদেশের রোল মডেল।

এসময় আরো বক্তব্য রাখেন, পেকুয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা সাইফুর রহমান মজুমদার, পেকুয়া সদর আ’লীগের সভাপতি আজম খান, উজানটিয়া ইউনিয়ন আ’লীগের সভাপতি তোফাজ্জল করিম, টইটং ইউনিয়ন আ’লীগের সাধারণ সম্পাদক জাহেদুল ইসলাম, মগনামা ইউনিয়ন আ’লীগের সভাপতি (ভারপ্রাপ্ত) মোস্তাক মিয়া ও সাধারণ সম্পাদক রশিদ আহমদ। এসময় বাংলাদেশ আ’লীগ ও সহযোগি সংগঠন পেকুয়া উপজেলা শাখা ছাড়াও স্থানীয় এলাকাবাসী, ইমাম ও শতাধিক মহিলা উপস্থিত ছিলেন।

আরো সংবাদ