ফরম পূরণের টাকা ফেরত পাবে এইচএসসি পাশ করা শিক্ষার্থীরা - কক্সবাজার কন্ঠ

বৃহস্পতিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২১ ১২ই ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

বৃহস্পতিবার

প্রকাশ :  ২০২১-০১-৩১ ১৯:২২:২৫

ফরম পূরণের টাকা ফেরত পাবে এইচএসসি পাশ করা শিক্ষার্থীরা

ফরম পূরণের টাকা ফেরত পাবে এইচএসসি পাশ করা শিক্ষার্থীরা

নিউজ ডেস্ক : করোনা মহামারির কারণে বাতিল হওয়া এইচএসসি ও সমমান পরীক্ষার ফরম পূরণের জন্য নেওয়া ফি ফেরত দেওয়ার নির্দেশনা দিয়েছে সরকার। রোববার (৩১ জানুয়ারি) ঢাকা শিক্ষা বোর্ড এ সংক্রান্ত অফিস আদেশ জারি করে।

ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক অধ্যাপক এস এম আমির উল ইসলাম স্বাক্ষরিত এ আদেশে বলা হয়, শিক্ষা বোর্ডগুলো আদায় করা এ অর্থ শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে এবং শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের পক্ষ থেকে এ ফি শিক্ষার্থীদের ফেরত দিতে হবে।

অফিস আদেশে আরও বলা হয়, ফরম পূরণ করা পরীক্ষার্থীদের, প্রতি পত্রের জন্য বোর্ড নির্ধারিত ফি থেকে ৩০ টাকা করে এবং শিক্ষা বোর্ড থেকে ব্যবহারিক প্রতি বিষয়ের ক্ষেত্রে ১০ টাকা ফেরত দিতে হবে। একইসঙ্গে, পরীক্ষার্থী প্রতি ২শ টাকা করে এবং আইসিটি বিষয়ক পরীক্ষার্থীদের আরও ২৫ টাকা ফেরত দিতে হবে।

এছাড়া আইসিটি বিষয় ছাড়া অন্যান্য ব্যবহারিক বিষয়ের ক্ষেত্রে প্রতি পত্রের জন্য অতিরিক্ত অরও ৪৫ টাকা করে ফেরত দিতে হবে। কেন্দ্র ফি হিসেবে ব্যয় না হওয়া অর্থ প্রতিষ্ঠান থেকে গ্রহণ করবে শিক্ষার্থীরা।

আদেশে আরও বলা হয়, এইচএসসি ও সমমান পরীক্ষায় পরীক্ষার্থী প্রতি প্রতিটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান সংশ্লিষ্ট কেন্দ্রকে ১৬০ টাকা হারে দিতে হবে। এ অর্থ পরীক্ষার গোপনীয় কাগজ পরিবহন ও বোর্ডে জমাদান, সংরক্ষণ ও প্রশাসনিক ব্যয় নির্বাহ করা হবে বলে জানানো হয়।

এদিকে সংশ্লিষ্ট শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ফরম পূরণ বাবদ আদায় করা অর্থের ১০ শতাংশ করে এবং আইসিটি ব্যবহারিক বিষয়ের জন্য আদায় করা ফি থেকে প্রতি পরীক্ষার্থীর ক্ষেত্রে ২০ টাকা ফরম পূরণ ও আনুষঙ্গিক কাজের জন্য ব্যয় নির্বাহ করা হবে।

এর আগে শনিবার এইচএসসি ও সমমানের ফল প্রকাশ অনুষ্ঠানে শিক্ষামন্ত্রী দীপু মনি বলেন, এবার এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষার ফরম পূরণের সময় জমা দেওয়া অর্থের কিছু অংশ ফেরত পাবেন শিক্ষার্থীরা। যেহেতু পরীক্ষা হয়নি তাই কিছু টাকা ফেরত দেওয়া হবে।

তিনি আরও বলেন, এবারের এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষা না হওয়ায় পরীক্ষার্থীদের ফরম পূরণ বাবদ আদায় করা অর্থের অব্যয়িত অংশ ফেরত দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

আরো সংবাদ