৩৪ সেকেন্ডের ভিডিও, মেহজাবিন ও একটি গুজব - কক্সবাজার কন্ঠ । কক্সবাজারের মুখপত্র

শুক্রবার, ২৯ মে ২০২০ ১৫ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

শুক্রবার

বিষয় :

প্রকাশ :  ২০১৯-০৯-১৭ ২১:১১:৪৮

৩৪ সেকেন্ডের ভিডিও, মেহজাবিন ও একটি গুজব

১৬ সেপ্টেম্বর থেকে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে বলা হচ্ছে ৩৪ সেকেন্ডের একটি অপ্রীতিকর ভিডিও প্রকাশ পেয়েছে ছোট পর্দার জনপ্রিয় অভিনেত্রী মেহজাবিন চৌধুরীর।

সেই ভিডিওটি আসলে মেহজাবিনের কিনা তা যাচাই বাছাই না করাই আগেই ভাইরাল এই অভিনেত্রী। এতটাই ভাইরাল যে এমন বিব্রতকর বিষয়টি নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে বিবৃতি দিতে বাধ্য হয়েছেন এই অভিনেত্রী।

নিজের ভেরিফায়েড ফেসবুক পেজে গতকাল (১৬ সেপ্টেম্বর) রাতে এক স্ট্যাটাসে মেহজাবিন জানিয়েছেন, আজকে সামাজিক মাধ্যম ফেসবুকে একটা ভিডিও ছড়িয়েছে এবং এ নিয়ে কিছু অসাধু লোকজন বিভ্রান্তির সৃষ্টি করছেন। আমার সকল ফ্যান-ফলোয়ার এবং সমর্থকদের কাছে আমার অনুরোধ মিথ্যা খবর কিংবা ভিডিওতে বিশ্বাস করবেন না। আমি ইতোমধ্যে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশ সাইবার ক্রাইম ডিপার্টমেন্টে যারা এসব বিভ্রান্তিকর তথ্য ছড়াচ্ছেন বা ছড়াতে সাহায্য করছেন তাদের বিরুদ্ধে আইনত ব্যবস্থা নেওয়ার অনুরোধ করেছি।

তবে আজ সেই ভিডিওটি অনুসন্ধান করে দেখা গেছে, ভিডিওটি একটি ভারতীয় পর্ণ ওয়েবসাইটের কিছু অংশ। বছর খানেক আগে ভারতের দিল্লিতে ভাইরাল হয়েছিল ভিডিওটি। সেই ভিডিও মাঝের কিছু অংশ কেটে কাল থেকে ফেসবুকে মেহজাবিনের ভিডিও বলে প্রচার করা হয়েছে। যার অন্যতম কারণ ভিডিওটি ভাইরাল করা আর মেহজাবীন ও তার পরিবারকে বিব্রত করা।

এ ব্যাপারে মেহজাবানি গণমাধ্যমকে জানিয়েছেন, আমি আমার ফ্যানদের প্রতি কৃতজ্ঞ তারা আমাকে অনেক বেশি সাপোর্ট দিয়েছেন। তারা সারারাত ধরে জেগে আসল ভিডিও উদ্ধার করে প্রমাণ করেছেন এটা আমি না। এজন্য তাদের ধন্যবাদ। সবচেয়ে অবাক হয়েছি যারা না বুঝে এটা ছড়িয়েছে। মানুষের জাজমেন্ট এতো দুর্বল হলে কীভাবে হয়? ভিডিওটি ভাইরাল করার জন্য আমার নাম জড়ানো হয়েছে। আমি হয়তো বিষয়টি বুঝতে পারছি কিন্তু যারা বুঝতে পারছে না তারা কী করবে, তাদের তো আত্মহত্যা করা ছাড়া কোনো উপায় নেই।

আরো সংবাদ