৫ দফা দাবি না মানা পর্যন্ত রোহিঙ্গারা মিয়ানমার ফিরবে না - Coxsbazarkontho.com | Newspaper

শনিবার, ১৬ নভেম্বর ২০১৯ ১লা অগ্রহায়ণ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

শনিবার

বিষয় :

প্রকাশ :  ২০১৯-০৮-২৫ ১১:২১:৩৯

৫ দফা দাবি না মানা পর্যন্ত রোহিঙ্গারা মিয়ানমার ফিরবে না

……..রোহিঙ্গা ক্যাম্পে মানব সমাবেশে বক্তারা……….

জসিম সিদ্দিকী কুতুপালং ক্যাম্প থেকে: নিজেদের নাগরিক অধিকারসহ ৫ দফা দাবী নিয়ে ঐক্যবদ্ধ থেকে আলোচনার যাত্রা শুরু করেছে রোহিঙ্গারা। ৫ দফা দাবি না মানা পর্যন্ত একজন রোহিঙ্গাও মিয়ানমার ফিরবে না তারা জানিয়েছেন। কারণ, মিয়ানমার সরকারের উপর আস্থা রাখা একেবারে বোকামি। ২৫ আগস্ট সকালে উখিয়ার ক্যাম্প এক্স-৪ এ ২ বছর পূর্তি উপলক্ষে আয়োজিত মহা মানব সমাবেশে এসব কথা বলেন রোহিঙ্গা নেতারা। এ সময় উপস্থিত লাখো রোহিঙ্গা তাদের অধিকার ফিরে পেলে মিয়ানমার ফিরবেন বলে জানিয়েছেন।
সমাবেশে ঘোষণাকৃত দাবি হলো, মিয়ানমারের রোহিঙ্গা নাগরিক হিসেবে মেনে নিতে হবে। নিরাপত্তা ও অবাধে চলাচলের স্বাধীনতা। নিজেদের হারানো ভিটে-মাটি ফেরত দিতে হবে। ২৫ আগস্টের নির্যাতনের বিচার করতে হবে।
আরকান রোহিঙ্গা সোসাইটির নেতা মাস্টার মুহিব উল্লাহ বলেন, মিয়ানমার সেনা ও মগদের নির্যাতনে বাংলাদেশে আশ্রয় নেয়ার ২ বছর পূর্তি উপলক্ষে মহাসমাবেশ করেছে রোহিঙ্গারা। রোহিঙ্গারা এখন ঐক্যবদ্ধ হয়েছে শুধু অধিকার ফিরে পেতে। আমরা নিজেদের দেশে ফিরতে চাই।কিন্তু অধিকার ও নিরাপত্তার নিশ্চয়তা ছাড়া কখনো ফিরবো না।
রোহিঙ্গা নেতা আব্দুর রহিম মাষ্টার বলেন, বাংলাদেশে থাকার ইচ্ছে নেই। তবে বিপদে পড়ে আমরা শরণার্থী। আশ্রয় দেয়ায় বাংলাদেশের সরকার, নাগরিকের প্রতিকৃতজ্ঞতা প্রকাশ করছি। তবে দাবি না মানা পর্যন্ত আমরা ফিরে গেলে আবারও নির্যাতন হতে পারে।

মিয়ানমার সরকার আলোচনার কথা বলে আমাদের সাথে ছলনা করছে উল্লেখ্য করে রোহিঙ্গা নেতা মোহাম্মদ ইলিয়াছ বলেন, যেখানে গত বৈঠকে আরো আলোচনার সিদ্ধান্ত হয় সেখানে হঠাৎ প্রত্যাবাসনের ঘোষণা দেয় মিয়ানমির সরকার। কিন্তু বৈঠকে দাবি মানার বিষয়ে আরও আলোচনার কথা বলা হয়েছিল, সেখানে প্রত্যাবাসনের ঘোষণা অবান্তর ও হাস্যকর বিষয়। এছাড়া মধুছড়া ক্যাম্প ও ২৪ নং ক্যাম্পসহ বিভিন্ন ক্যাম্পে সমাবেশ করছে রোহিঙ্গারা।

পরিকল্পিত কক্সবাজার আন্দোলনের মূখপাত্র আব্দুল আলিম নোবেল জানিয়েছেন, রোহিঙ্গা সমাবেশ মানব পাহাড়। এই মানব ঢেউ যে কোন সময় হোস্ট কমিউনিটির উপর আঁচড়ে পড়তে পারে এমন সম্ভাবনাও কোনভাবে উড়িয়ে দেয়া যাবে না। রোহিঙ্গা শিবিরে আরো নিরাপত্তা জোরদার করার দাবি জানাচ্ছি। সমাবেশে মোনাজাত পরিচালনা করেন মাওলানা নুরুল ইসলাম। মোনাজাতে নিজেদের নাগরিক অধিকার ও আশ্রয় দেয়ায় বাংলাদেশের জন্য দোয়া কামনা করা হয়।

উল্লেখ্য, ২৫ আগস্ট রোহিঙ্গা সংকটের ২ বছর পূর্ণ হয়েছে। ২০১৭ সালের এ দিনে ভয়াবহ হত্যাযজ্ঞের ঘটনা ঘটে মিয়ানমারের রাখাইন রাজ্য। এরপর থেকে বাংলাদেশে পালিয়ে আসে রোহিঙ্গারা। বর্তমানে বাংলাদেশে আশ্রিত রোহিঙ্গার সংখ্যা প্রায় ১১ লাখ।

আরো সংবাদ

আর্কাইভ ক্যালেন্ডার
নভেম্বর ২০১৯
সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
« অক্টোবর    
 
১০
১১১২১৩১৪১৫১৬১৭
১৮১৯২০২১২২২৩২৪
২৫২৬২৭২৮২৯৩০