রোহিঙ্গা অনুপ্রবেশের প্রথম বার্ষিকী

কক্সবাজার : আজ ২৫ আগস্ট বাংলাদেশে রোহিঙ্গাদের অনুপ্রবেশের প্রথম বার্ষিকী হলেও তাদের নিজ দেশ মিয়ানমারে প্রত্যাবাসন প্রক্রিয়ায় প্রকৃতপক্ষে কোন অগ্রগতি নেই। তবে মিয়ানমারের সাথে শুধুমাত্র আলোচনা অব্যাহত রয়েছে। অন্যদিকে রাখাইন রাজ্যে উপযোগী পরিবেশ না থাকায় রোহিঙ্গারা এখনো বাংলাদেশে আসছে।
স্থানীয় পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণকারিরা বলেন, প্রত্যাবাসন নিয়ে এখনও অগ্রগতি হচ্ছে। মিয়ানমারের সাথে আলোচনা বন্ধ হয়নি। আর রাখাইন রাজ্যে অনুকূল পরিবেশের অভাবে রোহিঙ্গারা এখনো বাংলাদেশে আসছে।
তবে মিয়ানমার সরকার বলছে রোহিঙ্গাদের প্রত্যাবাসন বিলম্বিত হওয়ার জন্য বাংলাদেশই দায়ী। তারা আরও বলছে রোহিঙ্গাদের দ্রুত মিয়ানমারের ফেরানোর সময়সীমা বাংলাদেশের ওপর নির্ভর করছে।
আজ ২৫ আগস্ট রাখাইন রাজ্যে মিয়ানমারের রোহিঙ্গাদের ওপর দমন অভিযানের প্রথম বার্ষিকী। অথচ উল্টো প্রতিক্রিয়ায় মিয়ানমার বলছে, পুলিশ স্টেশনে আরাকান রোহিঙ্গা স্যালভেশন আর্মি (আরসা) আক্রমণ করেছে। দেশটির সেনাবাহিনী ও তাদের সহযোগীরা হাজার হাজার রোহিঙ্গাদের হত্যা করেছে, গ্রামের অসংখ্য ঘরবাড়িতে আগুন জ্বালিয়ে দিয়েছে। পাশাপাশি ব্যাপক যৌন সহিংসতা চালিয়েছে। ফলে ৭ লাখেরও বেশি রোহিঙ্গা বাংলাদেশে পালিয়ে আসতে বাধ্য হয়েছে। এদিকে এখনো বাংলাদেশ সীমান্ত খোলা রয়েছে যা নজিরবিহীন এবং মানবিক ভিত্তিতে উদারতা দেখাচ্ছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*