দেশে প্রায় ২ কোটি মানুষ কিডনি রোগে আক্রান্ত সেমিনারে বক্তারা - কক্সবাজার কন্ঠ

শুক্রবার, ১ মার্চ ২০২৪ ১৭ই ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

প্রকাশ :  ২০২৩-০৯-০৯ ০৯:৫৯:২১

দেশে প্রায় ২ কোটি মানুষ কিডনি রোগে আক্রান্ত সেমিনারে বক্তারা

দেশে প্রায় ২ কোটি মানুষ কিডনি রোগে আক্রান্ত সেমিনারে বক্তারা

কক্সবাজার : বাংলাদেশে প্রায় ২ কোটি মানুষ কমবেশি কিডনি রোগে আক্রান্ত। এত বিপুল সংখ্যক কিডনি রোগীর চিকিৎসায় দেশে অভিজ্ঞ কিডনি রোগের বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকের প্রয়োজন রয়েছে। কিডনি চিকিৎসা খুবই জটিল এবং ব্যয়বহুল হওয়ায় অনেক রোগী কিডনি চিকিৎসার জন্য বিদেশে চলে যাচ্ছে। তাই কিডনি রোগীদের বিদেশমুখি প্রবনতা কমাতে এবং দেশে কিডনি রোগীদের চিকিৎসা সেবার মান বৃদ্ধির কোনো বিকল্প নেই বলে জানিয়েছেন বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকেরা।

বাংলাদেশ রেনাল এসোসিয়েশন আয়োজিত তিনদিনের ১৭তম ইন্টারন্যাশনাল সাইন্টিফিক কনফারেন্সে কিডনি বিশেষজ্ঞরা এসব মন্তব্য করেন। শনিবার (৯ সেপ্টেম্বর) কক্সবাজারের উখিয়ার ইনানী সমুদ্র পাড়ে অবস্থিত সী পার্ল বীচ রিসোর্টের সম্মেলন কক্ষে এই সেমিনার শুরু হয়।

সেমিনারে বক্তারা বলেন, বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকের অভাবে দেশের অধিকাংশ কিডনি রোগী বাংলাদেশে সঠিক চিকিৎসা পাচ্ছে না। দেশেই কিডনি রোগীদের চিকিৎসা সহজলভ্য এবং চিকিৎসা সেবার মান বৃদ্ধি করতে হবে। দেশের তরুণ ডাক্তারদেরকে কিডনি রোগের চিকিৎসায় আধুনিক জ্ঞানে সমৃদ্ধ হওয়ার বিকল্প নেই। এই সাইন্টিফিক সেমিনারের মাধ্যমে বিদেশি রিসোর্স পার্সন ও বিশেষজ্ঞদের মাধ্যমে দেশের নবীন কিডনি চিকিৎসকদের দক্ষতা বৃদ্ধির জন্য প্রশিক্ষণ দেয়া হবে যাতে তারা দেশের সাধারণ ও গরীব কিডনি রোগীদের মানসম্মত চিকিৎসা সেবা দিতে পারে।

বক্তারা বলেন, বর্তমান সরকার জেলা পর্যায়ে প্রতিটি হাসপাতালে ১০ বেডের এবং মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ৫০ বেডের কিডনি রোগীদের ডায়ালেসিস সেন্টার করার উদ্যোগ নিচ্ছে। এই উদ্যোগ বাস্তবায়ন করতে আরও অভিজ্ঞ কিডনি চিকিৎসক ও নার্সিং স্টাফের প্রয়োজন রয়েছে।

উক্ত বৈজ্ঞানিক সেমিনারে অংশগ্রহণ করতে যুক্তরাষ্ট্রসহ সার্কভুক্ত দেশ সমূহের স্বনামধন্য কিডনি রোগ বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকরা অংশ নিচ্ছেন । এছাড়া প্রায় চার শতাধিক বাংলাদেশি কিডনি রোগ চিকিৎসক উক্ত সেমিনারে অংশগ্রহণ করছেন।

সেমিনারের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব বিশ্ববিদ্যালয়ের সম্মানিত ভাইস চ্যান্সেলর প্রফেসর ডাক্তার মো. শরফুদ্দিন আহমেদ। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ইন্টারন্যাশনাল সোসাইটি অফ নেফ্রিউলজির সভাপতি অধ্যাপক ডাক্তার নারায়ণ প্রসাদ এবং ইন্টারন্যাশনাল সোসাইটি অফ নেফ্রিউলজির সহ-সভাপতি প্রফেসর ডাক্তার মোহাম্মদ রফিকুল আলম।

স্বাগত বক্তব্য প্রদান করেন বাংলাদেশ রেনাল এসোসিয়েশন এর মহাসচিব এবং ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট অফ কিডনি ডিজিস এন্ড ইউরোলজি-এর ডিরেক্টর প্রফেসর ডাক্তার মোহাম্মদ বাবরুল আলম। সভাপতির বক্তব্য প্রদান করেন বাংলাদেশ রেনাল এসোসিয়েশন এর সভাপতি প্রফেসর ডাক্তার মো. নিজাম উদ্দিন চৌধুরী।

আরো সংবাদ